ডাঃ ফজলে এলাহী খাঁন(এনাম) বৃহত্তর নােয়াখালীর একজন খ্যাতিমান কিডনি চিকিৎসক,সমাজসেবক, করোনাযুদ্ধে বৃহত্তর নোয়াখালী জেলায় স্বাস্থ্যব্যবস্থাপনায় রেখেছেন প্রশংসনীয় অবদান

নোয়াখালী নিউজ

নোয়াখালী প্রতিনিধিঃ  ২০১৭ সাল থেকে নেতৃত্ব দিয়ে যাচ্ছেন স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ নোয়াখালী জেলা শাখার সভাপতি হিসেবে।বৈশ্বিক মহামারী করােনাকালে ফ্রন্টলাইন থেকে তদারকি ও কাজ করে যাচ্ছেন তিনি । এছাড়াও তার ইতিপূর্বে বেশ কয়েকটি অবদান রযেছে । আব্দুল মালেক উকিল মেডিকেল কলেজ এ কোভিড -১৯ বা করােনা টেস্ট এর rTpcr ল্যাব স্থাপন করে করোনা ভাইরাস পরীক্ষা কেন্দ্র চালু করা,নােয়াখালী ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে ২০ শয্যা বিশিষ্ট কিডনী ডায়ালাইসিস ইউনিট স্থাপন ,১৬ শয্যা বিশিষ্ট মডেল কিডনী ডায়ালাইসিস ওয়ার্ড স্থাপন সহ বিভিন্ন কার্যক্রম ।
অল্প খরচে সাধারণ মানুষগন ডায়ালাইসিস সেবা নিতে পারবেন।নোয়াখালীর একজন কিডনী রােগীকে বেসরকারীভাবে ডায়ালাইসিস করতে ২৫০০ থেকে ৩০০০ হাজার টাকা গুনতে হতাে সেখানে নাম মাত্র মূল্য ৪০০-৫০০ টাকার মধ্য এই সেবা পাচ্ছেন।

আর তাছাড়া অনেক বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা করােনার ভয়ে রােগী দেখা বন্ধ করে দেন । এই দুঃসময়ে ডাঃ ফজলে এলাহী খান রােগীদের নিয়মিত সেবা দিয়েছেন । করোনাকালীন নােয়াখালীতে তিনি মানবতার ফেরিওয়ালার ভূমিকায় অবতীর্ণ হন করোনার ভরা মৌসুমে | জীবনের ঝুঁকি নিয়ে নােয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের আইসােলেশন ওয়ার্ডে , কিডনি ডায়ালাইসিস ইউনিটে ভর্তি রােগীদের নিয়মিত চিকিৎসাসেবা প্রদান করেন । এছাড়া তিনি তার প্রাইভেট চেম্বারেও করােনা রােগীসহ বিভিন্ন রােগীকে চিকিৎসাসেবা দেন ।

ডাঃ ফজলে এলাহী খাঁন বলেন , চিকিৎসাসেবা দেয়া আমার পেশা । মানুষের জন্য কিছু করার জন্যই আমি এ মহান পেশা বেছে নিয়েছি । করােনাকালে সময়ে রােগীদের স্বার্থ দেখে পরিবারকে সময় না দিয়ে রােগীদের সেবা দিয়েছি,করােনার ভয়ে চিকিৎসকরা যদি আত্অগোপনে থাকেন তাহলে সাধারণ মানুষ যাবে কোথায়। তিনি আরও বলেন , “ আমি জীবন ও পরিবারের মায়া ত্যাগ করে রােগীদের স্বার্থে কাজ করেছি।

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *